বিপদে পড়তে পারে বাংলাদেশের অনেক ব্যাবসা প্রতিস্ঠান ।

আমাদের দেশে অধিকাংশ ব্যাবসা প্রতিস্ঠান এখনো জানে না যে অনলাইন ব্যাবসা করে কে কত উন্নতি

 আনতে পারে । ব্যাবসা প্রতিস্ঠান গুলো তারা এখনো তাদের চলা চলিত নিময় অনুযায়ী এগিয়ে যাচ্ছে।

আমি বলছি না যে এটা খারাপ । কিন্তু সামনে এমন দিন আসছে যে যেখানে প্রতিটি ব্যাবসা প্রতিস্ঠানে 

একটি করে ওয়েব সাইট থাকবে সেখানে প্রতি টি সাইটের ব্যাবসা বিশ্ব দরবারে নিয়ে যাবে । আমার বন্ধু

র একটি ব্যাবসা প্রতিস্ঠান আছে । ষেখানে সে ছেলে দের টি  শাট ও  গেন্জি বিক্রি করছে । শুরু তে 

সে শাটও গেন্জি বিক্রি করে ভালই টাকা আয় করতে পারতো। কিন্তু বতর্মানে ব্যাবসা ক্ষেেএ অতি 

মাএায় চ্যালেন্জ হয়ে যাওয়ায় তার পক্ষে ব্যাবসাটি চালিয়ে যাওয়া প্রায় অসম্ভব হয়ে পড়ে ছিল । তখন 

আরো জানুন:

সে অনলাইনে  দেখলো ।কিভাবে পণ্য বিক্রি করে অধিক টাকা আয় করা যায় । পড়ে সে একটি ওয়েব 

সাইট খুললো তার দোকনের নামে এবং তার পণ্য অফলাইনে ও অনলাইনে বিক্রি শুরু করলো । এখন 

তার আয় আগের তুলনায় অনেক বৃদ্ধি পেয়েছে। 

আগে চেয়ে তার কাস্টমারের সংখ্যা বেড়ে গিয়েছে। যেমন অফলাইনে তেমনি অনলাইনে ডিজিটাল 

মার্কেটিং এর সাহায্যে  ব্যবসার ব্যাপক প্রসার করা সম্ভব তা কিন্তু তাদের মাথায়ই নেই। খুবই খারাপ 

লাগে যখন দেখি বাংলাদেশের বড় বড় ব্যবসা প্রতিষ্ঠান অনলাইন কে তেমন একটা গুরুত্ব দিচ্ছে না। 

তারা মনে করে অনলাইনের চেয়ে অফলাইন টি ভাল কাজ করে থাকেন । তাই বলছি সময় বদলেছে । 

এমন দিন আসবে যেখানে প্রতি টি ব্যাবসা ক্ষেএ বিভিন্ন সমস্যায় পড়তে পারে । কারন অফলাইনে যেমন

 টাকা ইনকাম করা যায় তেমনি অনলাইনে ও তার চেয়ে বেশি টাকা ইনকাম করা যায় । তাই বলছি 

এখনি নজর দিলে ভাল হবে । তা না হলে বিপদে পড়তে পারে বাংলাদেশের অনেক ব্যাবসা প্রতিস্ঠান। 

আমার এ লেখায় অনেকে কস্ট পেতে পারেন । দয়া করে ক্ষমা করবেন। কিন্তু আমি যা লিখলাম তা 

খাটবে এটা সত্য । কারন ডিজিটাল যুগে মানুষ ঘরে বসে যে কোন জিনিস পেতে চায় । থাকতে চায় 

টেনশন ফ্রি । যেখানে যে ব্যবসায়ী আছেন না কেন ভালো থাকবেন, সুখে থাকবেন এ বলেই আজকের 

পোস্ট এখানে শেষ করছি। 

Leave a Comment