ক্যাপচা এন্ট্রি কি? এবং ক্যাপচা এন্ট্রি কিভাবে এটি কাজ করে ?

ক্যাপচা এন্ট্রি কি? এবং ক্যাপচা এন্ট্রি  কিভাবে এটি কাজ করে ?

ইন্টারনেটে টাইপিং এর উপর যতগুলো কাজ পাওয়া যায় তার মধ্যে ক্যাপচা এন্ট্রির কাজটি সবচেয়ে বেশি

জনপ্রিয় । কারণ এ ধরনের কাজে কাজ করার ক্ষমতার উপর ভিত্তি করে একজন মানুষ কত টাকা

ইনকাম করতে পারবেন তা নির্ধারণ করা হয়। যত বেশি পরিমাণ কাজ তত বেশি পরিমাণ ইনকাম।

এমনও অনেক বিশ্বস্ত ক্যাপচা এন্ট্রির ওয়েবসাইট রয়েছে যেখানে সপ্তাহের ৭দিন ২৪ ঘন্টাই কাজ করার

সুযোগ রয়েছে।

তবে ক্যাপচা এন্ট্রি থেকে ভাল পরিমাণ আয় করার জন্য কাজের প্রতি একাগ্রতা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। আপনি

যদি এ কাজে নতুনও হন, তবুও বিশ্বস্ত ক্যাপচা এন্ট্রির ওয়েবসাইট এর মাধ্যমে আপনি আপনার অনলাইন

ইনকামের যাত্রা শুরু করতে পারেন। সময়ের সাথে সাথে আপনার টাইপিং স্পীড যত বৃদ্ধি পেতে থাকবে,

আপনিও তত বেশি ইনকাম করতে থাকবেন।

ক্যাপচা এন্ট্রি কি:

বর্তমান সময়ে ইন্টারনেট সম্পর্কে সাধারণ জ্ঞানের অভাব রয়েছে এমন মানুষ খুঁজে পাওয়া কঠিন। একই

সাথে একটি জিমেইল, ইয়াহু, হটমেইল, ফেসবুক, টুইটার এর মত ওয়েবসাইটে একাউন্ট নেই এমন মানুষ

ও খুঁজে পাওয়াও দুষ্কর।

আপনি ইন্টারনেটে যখন কোন নতুন ওয়েবসাইটে একাউন্ট তৈরীর চেষ্টা করেন তখন অবশ্যই খেয়াল

করেছেন  আপনাকে একটি নির্দিষ্ট বক্সে কিছু ইংরেজী সংখ্যা বা অক্ষর লিখে সাবমিট করতে হয়। এটিকেই

ক্যাপচা বলা হয়।

কিভাবে এটি কাজ করে:

একটি ওয়েবসাইটে ক্যাপচা ইনষ্টল করার মূল উদ্দেশ্য হলো যাতে কোন ধরনের অটোমেটিক বট বা

সফটওয়্যার স্বয়ংক্রিয়ভাবে তাদের ওয়েবসাইটে অ্যাকাউন্ট করতে না পারে। কিন্তু ইন্টারনেটে এমন

অনেক কোম্পানী রয়েছে যাদের প্রতিনিয়ত হাজারেরও বেশি ওয়েবসাইটে নিজেদের অ্যাকাউন্ট তৈরী

করার প্রয়োজন হয়, যার জন্য তারা সফটওয়্যার ব্যবহার করে থাকে।

কিন্তু মজার ব্যাপারটি হলো স্বয়ংক্রিয়ভাবে ক্যাপচা এন্ট্রি করার মতো কোন প্রযুক্তি না থাকার ফলে

সফটওয়্যার দ্বারা তারা ফর্মের বিভিন্ন অংশ পূরণ করতে পারলেও ক্যাপচা এন্ট্রি করে দেওয়ার জন্য

তাদের একজন মানুষের প্রয়োজন হয়। মূলত আপনি ওইসব কোম্পানীর হয়ে ক্যাপচা এন্ট্রি করে থাকেন

যার বিনিময়ে তারা আপনাকে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ অর্থ দিয়ে থাকে।

ক্যাপচা এন্ট্রি কাজের যোগ্যতা :

ক্যাপচা এন্ট্রির কাজ করার জন্য কোন বড় ধরনের যোগ্যতা থাকার প্রয়োজন নেই। তারপরেও ক্যাপচা

এন্ট্রির কাজ করতে চাইলে কিছু বিষয়ের প্রতি লক্ষ্য রাখা জরুরী:

  • স্বাভাবিকভাবে ইংরেজী অক্ষর পড়তে ও বুঝতে পারেন এমন যে কেউ ক্যাপচা এন্ট্রির কাজ ভালোভাবে করতে পারেন।
  • ক্যাপচা এন্ট্রির কাজ কোন নির্দিষ্ট দেশের মধ্যেও সীমাবদ্ধ নয়। পৃথিবীর যে কোন দেশের মানুষই ক্যাপচা এন্টির কাজ করতে পারেন। দেখার বিষয় হলো যে আপনি যে ওয়েবসাইটে কাজ করতে চান তারা যে পদ্ধতিতে পারিশ্রমিক প্রদান করে থাকে তা আপনার দেশ সমর্থন করে কিনা। উদাহরন স্বরুপ পেমেন্ট নেওয়ার ক্ষেত্রে সবচেয়ে বেশি জনপ্রিয় মাধ্যম হলো পেপাল। এখন আমাদের দেশে পেপাল না থাকায় যে সকল ওয়েবসাইট পেপালের মাধ্যমে পেমেন্ট দিয়ে থাকে সে সকল ওয়েবসাইটে কাজ করলে আপনি পেমেন্ট পাবেন না। বর্তমানে আমাদের দেশে পেইজা রয়েছে এবং অনেক ক্যাপচা এন্ট্রি ওয়েবসাইটও পেইজা সমর্থন করে। তাই ওয়েবসাইট নির্বাচনের দিক থেকে সতর্ক হওয়া ভালো।
  • কিছু কিছু ওয়েবসাইট আছে যেখানে কাজ করতে হলে আপনার প্রতি ১৫ সেকেন্ডে একটি করে ক্যাপচা এন্ট্রি করার মত সামর্থ থাকতে হবে। ব্যক্তিগতভাবে আমি মনে করি আপনার যদি প্রতি ১৫ সেকেন্ডে একটি করে ক্যাপচা এন্ট্রি করার মত সামর্থ না থাকে তাহলে ক্যাপচা এন্ট্রির কাজ আপনার না করাই ভালো। কারণ এক্ষেত্রে আপনি খুব বেশি পরিমান টাকা আয় করতে পারবেন না।
  • আপনি যে ইন্টারনেট সংযোগটি ব্যবহার করছেন তার গতি যেন কমপক্ষে ৫১২ মেগা হয়। ধীর গতির ইন্টারনেট সংযোগ ব্যবহার করলে ইমেজ লোড হতে দেরী হবে এবং আপনার টাইপিং স্পীড ভালো হওয়া স্বত্বেও আপনি পিছিয়ে পড়বেন।

জেনে নিন: ক্যাপচা এন্ট্রির করে প্রতিদিন ১৫ হাজার টাকা আয় করুন

ভাল থাকবেন

simonpan

শিমন পান হলেন , এই ওয়েব সাইটের একজন প্রফেশনাল এফিলিয়েট মার্কেটার। এফিলিয়েট মার্কেটিং বিষয়ক খুঁটিনাটি বিষয়বস্তূ নিয়ে আলোচনা করা এবং মাতৃভাষা বাংলাতেই কিভাবে একজন ব্যাক্তি জিরো থেকে শুরু করে সফলতার শীর্ষে অবস্থান করতে পারেন তা নিয়ে আলোচনা করাই এই ওয়েবসাইট এর মূল উদ্দেশ্য । তিনি অনলাইনে কাজ শুরু করেন ২০১৮ সালের জানুয়ারী মাসে । তার প্রথন সাইটটির নাম হল www.makemoneywithdada.com । এফিলিয়েট মার্কেটিং বিষয়ক বিভিন্ন আপডেট পেতে নিয়মিত এ ওয়েবসাইট টি ভিসিট করুন। যেকোনো তথ্যের জন্য যোগাযোগ করুন :- simonpanbd@gmail.com

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *